চিরতরে খুশকি এবং চুল পড়া বন্ধ করবে পেঁয়াজের রস!

ত্বক একটু ফর্সা করার জন্য সময় খরচ করলেও চুলের সৌন্দর্য বাড়ানো নিয়ে সেভাবে কেউউ ভাবতে বা যত্ন নিতে চান না। পেঁয়াজের মধ্যে প্রচুর পরিমাণে জীবাণুনাশক উপাদান থাকে। আর ঠিক এই কারণেই পেঁয়াজ আমাদের চুলের যাবতীয় সমস্যা সমাধান করতে দারুন ভাবে সাহায্য করতে পারে।

চলুন জেনে নেওয়া যাক, চুলের সৌন্দর্য বৃদ্ধিতে পেঁয়াজের রস কীভাবে সাহায্য করে- খুশকি এবং চুল পড়ে যাওয়া বন্ধ করতে পেঁয়াজের রসের সঙ্গে মধু একসঙ্গে মিশিয়ে মাথায় লাগান। সমপরিমাণে পেঁয়াজের রস এবং মধু নিন। মাথায় হাল্কা মালিশ করে লাগান। আধ ঘণ্টা রেখে ধুয়ে ফেলুন।

পেঁয়াজের রস থেকে সবচেয়ে ভাল ফল পেতে চাইলে এটি সরাসরি ব্যবহার করুন। ২/৩ টি বড় পেঁয়াজ নিয়ে ব্লেন্ড করে রস করে ফেলুন। রস মাথার তালুতে আঙ্গুলের ডগা দিয়ে ম্যাসাজ করে লাগান। কমপক্ষে ৩০ মিনিট অপেক্ষা করুন। এরপর শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন।

চুলের চর্চার ক্ষেত্রে নারকেল তেল বহুকাল ধরে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। এটি চুল পড়া বন্ধেরও সাহায্য করে। এর সঙ্গে পেঁয়াজ রস মেশালে কার্যকারিতা আরো বেশি বেড়ে যায়। এই মিশ্রণটি চুলের গোড়া মজবুত হয়ে চুল পড়া বন্ধ করবে।

আমন্ড তেল রুক্ষ চুলের সমস্যা দূর করতে সাহায্য করে। পেঁয়াজের রসের সঙ্গে মিশালে চুল পড়া বন্ধ করতেও এটি সাহায্য করে। এক্ষেত্রেও এই দুইটি সমপরিমাণে নিয়ে মাথায় লাগান। ২-৩ ঘণ্টা রাখার পর হাল্কা গরম জলে মাইল্ড শ্যাম্পুর সাহায্যে ধুয়ে নিন।

অলিভ অয়েলের সঙ্গে তিন টেবিল চামচ পেঁয়াজের রস মেশান। এবার মিশ্রনটি হাতে নিয়ে গোলাকার পদ্ধতিতে চুলের গোঁড়ায় এবং স্কাল্পে লাগিয়ে নিন। দুঘণ্টা রেখে কম ক্ষারযুক্ত শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। চুলের শক্তি বৃদ্ধিতে এবং খুশকি কমাতে এই প্যাকটির জুড়ি মেলা ভার।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *