শীর্ষ ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির সিইও রাসেল ও তার স্ত্রীর দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা

দেশের অন্যতম শীর্ষ ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) রাসেল ও তার স্ত্রী শামীম নাসরিনের (ইভ্যালির চেয়ারম্যান) দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। শুক্রবার বিকেলে দুদক সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

এর আগে ইভ্যালির বিরুদ্ধে উঠা অভিযোগের অনুসন্ধান করতে গত বৃহস্পতিবার দুই সদস্যের কমিটি গঠন করে দুদক। কমিটির নেতৃত্বে রয়েছেন দুদকের সহকারী পরিচালক মামুনুর রশীদ চৌধুরী। দুই সদস্যের অনুসন্ধান দলের অপর সদস্য হলেন উপ-সহকারী পরিচালক মুহাম্মদ শিহাব সালাম।

বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেন দুদক কমিশনার (অনুসন্ধান) মো. মোজাম্মেল হক খান। তিনি বলেছিলেন, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো চিঠির ভিত্তিতে অনুসন্ধানের সিদ্ধান্ত নিয়ে দুই সদস্যের কমিটি গঠন করে দেওয়া হয়েছে। এ বিষয়ে দুদকে আসা অন্যান্য অভিযোগ ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সুপারিশসহ নানা বিষয়ে দায়িত্ব পালন করবেন অনুসন্ধান দলের সদস্যরা।

অনলাইনে পণ্য কেনা-বেচার নামে গ্রাহক ও মার্চেন্টদের কাছ থেকে অগ্রিম হিসাবে প্রায় ৩৩৯ কোটি টাকা নেয় ইভ্যালি। কিন্তু ওই টাকার কোনো সন্ধান মিলছে না বলে খবর প্রকাশ হয়। সেই টাকার খোঁজে মাঠে নামে দুদক।

দুদক সূত্র বলেছিল, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো চিঠি ও বাংলাদেশ ব্যাংকের তদন্ত প্রতিবেদনের সূত্র ধরে এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্তও নিয়েছে কমিশন। তবে করোনা প্রাদুর্ভাব বাড়ায় সরকার ঘোষিত কঠোর লকডাউনের কারণে অনুসন্ধান কাজ কিছুটা ধীরগতি হতে পারে।

কবিরাজ: তপন দেব,সাধনা ঔষধালয় । এখানে আয়ুর্বেদী ঔষধের মাধ্যমে- আমাদের এখানে নারী ও পুরুষের সকল #যৌন_রোগ সহ জটিল ও কঠিন রোগের সু চিকিৎসা করা হয়।
বিঃ দ্রঃ আমাদের এখান থেকে দেশে ও বিদেশে কুরিয়ার করে ঔষধ পাঠানো হয়। আপনার চিকিৎসার জন্য আজই যোগাযোগ করুন – ০১৮২১৮৭০১৭০

এর আগে ৪ জুলাই ইভ্যালির বিরুদ্ধে ওঠা বিভিন্ন অভিযোগ তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে সরকারের চার প্রতিষ্ঠানকে চিঠি দেয় বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। প্রতিষ্ঠানগুলো হচ্ছে- দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক), স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগ, বাংলাদেশ প্রতিযোগিতা কমিশন ও জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *