মুরগির রোস্টের কয়েকটি সহজ রেসিপি , পাবেন বিয়ে বাড়ির রোস্টের মতই হুবহু স্বাদ

আজ আপনাদের জন্য মজাদার মুরগির রোস্টের কয়েকটি রেসিপি থাকছে।এখানে ৪টি রেসিপি’র বর্ণনা দিয়েছি। আশা করি রেসিপিগুলো আপনাদের ভালো লাগবে।

পদ্ধতি-১

উপকরণ

মুরগি এক কেজি, ঘি এক টেবিল চামচ, রসুন বাটা এক টেবিল চামচ, তেল আধা কাপ, গোল মরিচ গুঁড়া আধা চা চামচ, পানি এক কাপ, লেবুর রস এক চা চামচ, বেরেস্তা এক কাপ, দারুচিনি বাটা আধা চা চামচ, টকদই আধা কাপ, আদা বাটা এক টেবিল চামচ, পোস্তদানা বাটা এক টেবিল চামচ, ধনিয়া গুঁড়া এক টেবিল চামচ, চিনি এক টেবিল চামচ, জাফরান এক চা চামচ, এলাচ বাটা চারটি, লবণ এক চা চামচ, জয়ত্রী গুঁড়া এক টেবিল চামচের চার ভাগের এক ভাগ।

প্রস্তুত প্রণালী

প্রথমে মুরগির চামড়া ছাড়িয়ে পরিস্কার করে ভালোভাবে ধুয়ে নিতে হবে। চুলায় বসানো কড়াইয়ে তেল দিন, তেল গরম হলে আস্ত মুরগি কম জ্বালে এপিঠ-ওপিঠ ভেজে নিতে হবে। এরপর ভাজা মুরগি তুলে একটি প্লেটে রাখতে হবে।

এবার চুলায় অন্য একটি কড়াই দিন, কড়াইয়ে ঘি দিন, ঘি গরম হয়ে এলে বেরেস্তা, লবণ, আদা বাটা, ধনিয়া গুঁড়া, পোস্তদানা বাটা, জাফরান, রসুন বাটা, দারচিনি বাটা, টকদই, গোলমরিচ গুঁড়া, জয়ত্রী গুঁড়া,এলাচ বাটা ও পানি দিয়ে ভালোভাবে নাড়াচাড়া করে মসলা দশ মিনিট কষিয়ে নিতেহবে।

এরপর ভাজা আস্ত মুরগি দিয়ে আবারো নাড়াচাড়া করে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে ত্রিশ মিনিট কম জ্বালে রান্না করতে হবে। কড়াইয়ের ঢাকনা খুলে লেবুর রস, চিনি দিয়ে নাড়াচাড়া করে ঘি উপরে ভেসে উঠলে বেরেস্তা দিয়ে নামিয়ে নিতে হবে। এভাবেই তৈরি হয়ে যাবে মুরগির রোস্ট। সুন্দর করে একটি ডিসে সেদ্ধ ডিম দিয়ে পোলাওয়ের সাথে মুরগির রোস্ট পরিবেশন করুন।

পদ্ধতি-২

উপকরণ

মুরগি ২টি, আদা বাটা ২ টেবিল চামচ, রসুন বাটা ২ টেবিল চামচ, টক দই ৩ কাপ লিকুইড হলে, ঘন হলে ১.৫ কাপ, পিঁয়াজ বাটা ৩ কাপ, লবণ, পোস্তদানা বাটা ২ চা চামচ, জায়ফল, জয়ত্রী বাটা একসাথে ১ চা চামচ, কেওড়া জল ১/৪ কাপ, গোলাপজল ২চা চামচ, তেল ২ কাপ, জিরা বাটা ২ চা চামচ, ধনিয়া গুঁড়া ২ চা চামচ, মরিচগুড়ো আধা চা চামচ, কাঁচামরিচ বাটা ২ টেবিল চামচ আর আস্ত ৫টি, বাদাম বাটা ২ টেবিল চামচ আর অবশ্যই এক চামচ চিনি।

প্রস্তুত প্রণালী

মুরগি ভালো মতো ধুয়ে নিন। এইবার মুরগির সাথে একটু আদা বাটা, রসুন বাটা আর টকদই দিয়ে ম্যারিনেড করে মানে হাত দিয়ে ভালোমতো মাখিয়ে ৩০ মিনিট ফ্রিজে রাখুন। ৩০ মিনিট পর মুরগিগুলো অল্প তেলে ভেজে নিন হালকা বাদামি হবে, দেখবেন ভাজা যাতে বেশি কড়া না হয়ে যায়। এইবার ঐ বড় ছড়ানো পাতিলটা আনেন দেখি। হ্যাঁ ঐটাই। চুলোয় দিন। এখন তেল দিন, তেল গরম হলে পিঁয়াজবাটা দিয়ে ভাজতে থাকুন, একটু বাদামি করে ভাঁজুন। তারপর আদা, রসুন, পোস্তদানা, জায়ফল, জয়ত্রী, বাদাম আর কাঁচা মরিচ বাঁটা দিন এবং ভাঁজতে থাকুন কিছুক্ষণ। বাকি মসলা আর টকদই দিয়ে দিন গোলাপজল আর কেওড়াজলসহ। ভালোমতো কষিয়ে নিন মসলা।

এরপর ভাঁজা মুরগি দিয়ে দিন। মুরগিসহ ১০ মিনিট কষান এবং তারপর ২ গ্লাস পানি দিন। ঢাকনা দিয়ে রান্না করুন ৩০ মিনিট। তারপর আস্ত কাঁচা মরিচ দিয়ে দিন। এবার আবারো ঢাকনা দিয়ে আবার কিছুক্ষণ রান্না করে পানি শুকিয়ে ফেলুন যতক্ষণ ঘন গ্রেভি না হবে। এরপর পরিবেশন করুন আপনার ইচ্ছেমতো, আমি পরিবেশন ছাড়াই দিলাম কারণ পরিবেশনের উপকরণ ছিল না। ওহ লবণ আর চিনি দিতে ভুলবেন না কিন্তু এইখানে দুইটাই পরিপূরক। রান্না করার সময় পরিমাণ বুঝেই রান্না করুন আর অবশ্যই আগ্রহ নিয়ে নাহলে মজা অর্ধেক কমে যাবে পোলাও-এর সাথেই পরিবেশন করুন। সালাদ/রাইতাও নিতে পারেন।

পদ্ধতি-৩

উপকরণ

মাঝারি সাইজের মুরগি ৩টা, ঘি ১০০ গ্রাম, তেল এক লিটার, জায়ফল বাটা এক চা চামচ, জৈত্রিক বাটা এক চা চামচ, আদা বাটা দুই চা চামচ, রসুন বাটা দেড় চা চামচ, পোস্তদানা বাটা আধা চা চামচ, কাঠবাদাম বাটা দুই টেবিল চামচ, কিসমিস এক টেবিল চামচ, আলু বোখারা ৭-৮টি, এলাচ ৪টি, দারুচিনি ৪টি, কাঁচামরিচ ৭-৮টি, টক দই, পিঁয়াজ বাটা এক কাপ, চিনি অল্প, লবণ ১৫০ গ্রাম।

প্রস্তুত প্রণালী

মুরগি রোস্টের মতো করে কেটে লবণ, টক দই, আদা ও রসুন দিয়ে মাখিয়ে রাখুন। কড়াইতে তেল দিয়ে তাতে মুরগির টুকরাগুলো বাদামি রঙ করে ভেজে তুলুন। এখন কড়াইতে ঘি ও তেল দিয়ে সব রকম মসলা, পিঁয়াজ বাটা, টক দই, চিনি, এলাচ, দারুচিনি, লবণ, বাদাম, আলু বোখারা, কিসমিস দিয়ে কষিয়ে ভাজা মুরগিগুলো রান্না করুন। মসলাগুলো ভালো করে মুরগির টুকরার গায়ে লেগে গেলেই মজাদার রোস্ট তৈরি হয়ে যাবে।

পদ্ধতি-৪

উপকরণ

মুরগি ৭৫০ গ্রাম, পিঁয়াজ বাটা ৩০০ গ্রাম, আদা বাটা ৫ গ্রাম, কাঁচা মরিচ বাটা ৩/৪টি, গুঁড়া মরিচ ১ টেবিল চামচ, ধনে গুড়া ১ টেবিল চামচ, বড় এলাচ ২টি, তেল ৩ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদ অনুযায়ী।

প্রস্তুত প্রণালী

মুরগি বড় বড় টুকরো করে কেটে নিতে হবে। তেল গরম হলে পিঁয়াজ, আদা, কাঁচা মরিচ বাটা দিয়ে মুরগি বাদামি করে ভেজে নিতে হবে। এবার লবণ, কাঁচা মরিচ, ধনিয়া গুঁড়া, এলাচ দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে আধ কাপ মতো জল দিয়ে ঢিমে জ্বালে রান্না করুন। যতক্ষণ না মুরগি সেদ্ধ হয়ে মাখা মাখা হচ্ছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *