Categories
Uncategorized

গরম দুধে মধু, কাজ দেবে ম্যাজিকের মত!

দু’ধ ও মধু, পুষ্টিতে ভরপুর বস্তু দুটো অতিপরিচিত। ক্যালসিয়ামের সবচেয়ে ভালো উৎস হল দু’ধ। ক্যালসিয়াম আমাদের দাঁত ও হাড়ের গঠনে সাহায্য করে।এছাড়া দাঁতের ক্ষয়রোধ করে দু’ধ। আর দাঁতের ক্ষয়রোধের স’ঙ্গে স’ঙ্গে দৃষ্টিশ’ক্তি ভালো রাখতেও দু’ধ অত্যন্ত কার্যকরী। সারাদিনের কর্মব্যস্ততার পর ক্লান্তি দূর করতে এক গ্লাস গরম দু’ধ খুবই উপকারী।

গরম দু’ধ ক্লান্ত পেশি সতেজ করতে সাহায্য করে। গত কয়েক মাস ধরে সবাই ওয়ার্ক ফ্রম হোমে অভ্যস্ত। সেই স’ঙ্গে দেখা দিচ্ছে আরও নানা স’মস্যাও। আমাদের অজান্তেই বেড়ে গেছে স্ক্রিন-টাইমিং।সারাদিনই বাড়িতে থাকার ফলে ল্যাপটপ, মেবাইল আর টিভিতেই কাটছে বেশির ভাগ সময়। এছাড়াও শপিং থেকে অফিসের কাজ ভরসা সেই ল্যাপটপ।

যার ফলে প্রভাব পড়ছে চোখে। সারাদিনের এই অতিরিক্ত চা’পে ক্লান্ত হয়ে পড়ছে চোখ। এদিকে চাইলেই যে চিকিৎসকের কাছে যেতে পারবেন এমন নিশ্চয়তাও নেই। অতএব যত্ন আপনার নিজেকেই নিতে হবে। যেমন কাজের ফাঁকে ল্যাপটপ থেকে একটু বিরতি নিন। চোখ সরিয়ে রাখু’ন। সবুজের দিকে তাকান।

কিংবা চোখ বন্ধ করে খানিকক্ষণ চোখের ব্যায়াম করুন। এরফলে দেখবেন চোখ অনেকটা সতেজ লাগবে। যারা ইতোমধ্যেই চশমাতে অভ্যস্ত তাদের পাওয়ার বেড়ে গিয়েছে অনেকখানি।
এদিকে যাদের চশমা ছিল না, তাদেরও অনেক রকম স’মস্যায় পড়তে হয়েছে। বর্তমানে পাল্লা দিয়ে বেড়েছে মা’নসিক চা’পও। সেই প্রভাবও পড়ছে চোখে।

কবিরাজ: তপন দেব । এখানে আয়ুর্বেদী ঔষধের মাধ্যমে- নারী ও-পুরুষের সকল প্রকার- জটিল ও গো’পন রোগের চিকিৎসা করা হয়। দেশে ও বিদেশে ওষুধ পাঠানো হয়। আপনার চিকিৎসার জন্য আজই যোগাযোগ করুন – ০১৮২১৮৭০১৭০ (সময় সকাল ৯ – রাত ১১ )

যাদের অ্যালার্জি কিংবা ড্রাই আইজের স’মস্যা রয়েছে তারা কাজের ফাঁকে যেমন ঠান্ডা পানিতে চোখ ধোবেন তেমনই চোখে গরম-ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ভাপও নেবেন। এইভাবে একরকম যত্ন নিতে পারেন।

এছাড়াও অবশ্যই বদল আনুন খাবারের মেনুতে। প্রতিদিন যদি কোনও একটা সময় গরম দু’ধে মধু মিশিয়ে খেতে পারেন তাহলে অনেক উপকার পাবেন। আর্য়ুবেদ শাস্ত্রেও বলা রয়েছে দু’ধে মধু মিশিয়ে খাবার কথা।দু’ধে মধু মিশিয়ে খেলে যেসব উপকার পাবেন

চোখ ভালো থাকবে
মধুর মধ্যে থাকে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, অ্যান্টিফাংগাল যা যেকোনও রকম ইনফেকশন থেকে রক্ষা করে। এছাড়াও দু’ধে আছে ভিটামিন ডি, এ। আছে ল্যাকটিক অ্যাসিড, ক্যালসিয়াম। ফলে যখন এই দুই উপাদান মিশে যাচ্ছে তখন তা যেমন দৃষ্টিশ’ক্তি ভালো করে তেমনই চোখের পেশির কার্যক্ষ’মতা বাড়ায়। চোখের জন্য বেশ কিছু ও’ষুধেও ব্যবহার করা হয় মধু।

মা’নসিক চা’প কমায়
গরম দু’ধ আর মধু একস’ঙ্গে খেলে তা স্নায়ুর উপর প্রভাব ফে’লে। ফলে পেশির ক্লান্তি দূর হয়। মা’নসিক চা’প কমে। হজম ভালো হয়।ঘুম ভালো হয় গরম দু’ধে মধু মিশিয়ে যদি প্রতিদিন রাতে শুতে যাওয়ার আগে খাওয়া যায় তাহলে কোষ্ঠকাঠিন্যের মতো স’মস্যা থেকে মুক্তি মেলে। পেট পরিষ্কার থাকে। যারা গ্যাসের স’মস্যায় ভুগছেন তারা যদি প্রতিদিন এই গরম দু’ধ খান তাহলে উপকার পাবেন। তবে খাওয়ার আগে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। যাদের দু’ধে স’মস্যা আছে তারা এড়িয়ে চলুন।

শ’ক্তি বাড়ায়
মধু আর দু’ধ এমনিই প্রচুর এনার্জি দেয়। কাজেই যখন দুটো একস’ঙ্গে মিশছে তখন যে তার ফল দ্বিগুণ হবে তা বলার অপেক্ষা থাকে না। সকালে অর্থাৎ প্রাতরাশের পর এক গ্লাস খেলে সারাদিন এনার্জি থাকবে তুঙ্গে।

পেটের যেকোনও সং’ক্র’মণে
অনেকেই আছেন যারা ক্রনিক পেটের স’মস্যায় ভোগেন। গ্যাস, অম্বল, পেটখা’রাপ অনেকের লেগেই থাকে। এছাড়াও হজমের স’মস্যা তো থাকেই। আর মধুর মধ্যে থাকা অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল উপাদান পাকস্থলীর সং’ক্র’মণের স’ঙ্গে লড়াই করে।

কবিরাজ: তপন দেব । এখানে আয়ুর্বেদী ঔষধের মাধ্যমে- নারী ও-পুরুষের সকল প্রকার- জটিল ও গো’পন রোগের চিকিৎসা করা হয়। দেশে ও বিদেশে ওষুধ পাঠানো হয়। আপনার চিকিৎসার জন্য আজই যোগাযোগ করুন – ০১৮২১৮৭০১৭০ (সময় সকাল ৯ – রাত ১১ )

মনযোগ বাড়ায়
একটানা ঘরে বসে কাজ করার ফলে সকলেরই নানা রকম স’মস্যা আসছে। বিশেষত মা’নসিক। কাজে আসছে একঘেঁয়েমি। যার ফলে মস্তিষ্কেও তার প্রভাব পড়ছে। ন’ষ্ট হচ্ছে মনযোগ। যে কারণে মধু আর দু’ধ খুব উপকারী। মধু মস্তিষ্কে ভালো প্রভাব ফে’লে আর দু’ধ মস্তিষ্কের কর্মক্ষ’মতা ঠিক থাকে। সব মিলিয়ে মনসংযোগের ঘাটতি পূরণ হয়। মন মেজাজ ভালো থাকে। কাজে গতি আসে। সূত্র: এই সময়

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *