Categories
Uncategorized

পৃ’থিবীতে ৩৩ লক্ষ বছরে যা হ’য়নি তা হতে পারে ২০২৫ সালে

২০২৫ সালের মধ্যে বাতাসে কা’র্বন ডাই অক্সাইডের পরিমাণ হতে চলেছে সর্বোচ্চ। –এ প্রকাশিত একটি গবে’ষণা পত্রে দাবি করেছেন সাদাম্পটন ইউনিভার্সিটির একদল গবেষক। এমন পরিস্থিতি নাকি ৩৩ লক্ষ বছরে প্রথমবার হতে চলেছে। তাই বাতাসের ভারসাম্য রক্ষায় বেগ পেতে হতে পারে মানুষকে।

কীভাবে হল এই গবে’ষণা?‌ গবেষকরা সমুদ্রের তলা থেকে একটি ক্ষুদ্র সেডিমেন্ট সংগ্রহ করেছিলেন। যেটির ব’য়স প্রায় ৩০ লক্ষ বছর। সেটির সাহায্যে দেখা যায়, সেই সময়ে পৃথিবীর গড় তাপমাত্রা ছিল ৩ ডিগ্রি বেশি।

এই গবে’ষণার মাধ্যমে দেখা গিয়েছে, কীভাবে পৃথিবী কার্বন ডাই অক্সাইডের স’ঙ্গে নিজেকে মানিয়ে নিয়েছে। কিন্তু দেখা যাচ্ছে, পৃথিবীর বর্তমান যা অবস্থা, তাতে ২০২৫ সালের মধ্যে বাতাসে কার্বন ডাই অক্সাইড বৃ’দ্ধির পরিমাণ হবে ২.‌৫ পিপিএম/‌প্রতি বছরে।
সেই অঙ্ক ছাড়িয়ে যাবে ৩৩ লক্ষ বছর আগের পৃথিবীতে থাকা কার্বন ডাই অক্সাইডের পরিমাণ।

সমুদ্র তলের উষ্ণতাও এর ফলে বৃ’দ্ধি পাবে। আমরা এখনও’ফিজিকস ডট ওআরজিতে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদনে এও বলা হয়েছে, পরিস্থিতি ঠিক কোনদিকে যাবে, তা এখনই ঠিক করে বলা মুশকিল। কারণ, এক নতুন জৈব যুগের পরিবর্তন বলা যায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *