চীনকে মু’ছে ফেলার হু’মকি, মোদি আরো যা বললেন

হঠাৎ করেই লাদাখ সফরে গেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ভারতীয় সীমান্ত চৌকি থেকে সেনা হাসপাতাল ছুটে গিয়েছেন সবখানেই। কথা বলেছেন সেনা কর্মকর্তা ও সৈনিকদের সঙ্গে। এরপর সামরিক সমাবেশে যোগ দিয়ে চীনের নাম মুখে না এনেই দিলেন প্রচ্ছন্ন হু’মকি। বলেছেন, ইতিহাস সাক্ষী, বিস্তা’রবা’দীরা মুছে গেছে পৃথিবী থেকে।

কবিরাজ: তপন দেব । এখানে আয়ুর্বেদী ঔষধের মাধ্যমে- নারী ও-পুরুষের সকল প্রকার- জটিল ও গোপন রোগের চিকিৎসা করা হয়। দেশে ও বিদেশে ওষুধ পাঠানো হয়। আপনার চিকিৎসার জন্য আজই যোগাযোগ করুন – ০১৮২১৮৭০১৭০ (সময় সকাল ৯ – রাত ১১ )

নরেন্দ্র মোদির ভাষণে বার্তা খুবই স্পষ্ট, সব দেশ বিস্তারবাদের বিরুদ্ধে একজোট হয়ে গেছে। একইসঙ্গে ভূঁয়সী প্রশংসা করলেন গলওয়ানে ভারতীয় বাহি’নীর বীরত্বের।

এ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন ভারতের তিন বাহিনী প্রধান চিফ অব ডিফেন্স স্টাফ জেনারেল বিপিন রাওয়াত এবং স্থলবাহিনীর প্রধান মনোজ মুকুন্দ নরবণ। তাদের নিয়েই লেহ থেকে তিনি এলএসির দিকে ফরওয়ার্ড পোস্ট ঘুরে দেখেন মোদি। কথা বলেন, সীমান্তে মোতায়েন সেনা সদস্যদের সঙ্গে। ১৫ জুন রাতে গালওয়ানের সংঘ’র্ষে যে সদস্যরা আহ’ত হয়েছিলেন, তাঁদের সঙ্গেও মোদি লেহতে দেখা করেছেন বলে জানা যাচ্ছে।

পরিস্থিতি সরেজমিন দেখার পর সেনা সদস্যদের উদ্দেশে ভাষণ দেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী। তাতে একদিকে যেমন সেনাদের বীরত্বের কথা বলেছেন, তেমনই নাম না ধরেই দিয়েছেন চীনকে হুঁশি’য়ারি। গালগওয়ানে নিহ’তদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে মোদি বলেন, গালওয়ানে যে বীরত্ব আপনারা দেখিয়েছেন, তা সারা দেশ মনে রাখবে। আপনারা বিশ্বকে বুঝিয়ে দিয়েছেন, ভারত তথা ভারতীয় সেনার শক্তি কতটা। আপনাদের ইচ্ছাশক্তি এই পর্বতের মতোই অটল।

সময় সংবাদের পাঠকদের জন্য সেনা সদস্যদের উদ্দেশে দেয়া ভারতের প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের মূল অংশ নিচে তুলে ধরা হলো।

নরেন্দ্র মোদির বক্তব্য:

• আমি আরো একবার আপনাদের সবাইকে অভিনন্দন জানাচ্ছি। • আমরা সবাই মিলে আত্মনির্ভর ভারত গড়ে তুলব। • ভারতের স্বপ্ন পূরণে ১৩০ কোটি ভারতবাসীও পিছিয়ে থাকবে না। • আমরা সবাই মিলে এবং বিশেষ করে আপনারা সীমান্তে দেশকে রক্ষা করছেন।

• আপনাদের কাছ থেকে অনুপ্রেরণা নিয়ে আমরা কঠিন চ্যালেঞ্জকেও মোকাবিলা করব। • আজ গোটা দেশ একজোট হয়ে লড়ছে। • সব দেশ আজ বিস্তারবাদের বিরুদ্ধে একজোট। • যার মাথায় বিস্তারবাদের ভূত চাপে, সে শান্তি নষ্ট করে। • বিস্তারবাদই এখন সব জায়গায় প্রাসঙ্গিক, বিস্তারবাদীরা শান্তির পক্ষে বিপ’জ্জনক। • বিস্তারবাদের যুগ শেষ হয়ে গেছে।

• গোটা বিশ্ব আজ বিকাশবাদের পথে চলতে চায়। • গোটা বিশ্ব এই বিস্তারবাদী শক্তির বিরো’ধিতা করার বিষয়ে মনস্থির করে ফেলেছে। • ইতিহাস সাক্ষী, এই সব শক্তি মুছে গেছে অথবা নত হতে বাধ্য হয়েছে। • কিন্তু কেউ কেউ এখনও বিস্তারবাদে বিশ্বাসী। • গোটা বিশ্ব আজ বিকাশবাদে বিশ্বাসী। • ভারতীয় সেনার আত্মবিশ্বাস আমি বুঝতে পারছি। • ভারতের শত্রুতা সেনার শক্তি দেখেছে।• আমরা হলাম সেই লোক, যারা বংশীধারী শ্রীকৃষ্ণের ধ্বজা ধরি, আবার সুদর্শন চক্রধারী শ্রীকৃষ্ণকেও আদর্শ মানি।

• ১৪ কোরের বীরত্বের কাহিনী সবাই জানে। • দেশের সব প্রান্তের বীররা গালওয়ানে নিজেদের শৌর্য দেখিয়েছেন। • গালওয়ান উপত্যকায় শহিদ জওয়ানদের আমি শ্রদ্ধা জানাচ্ছি। • আপনাদের বীরত্ব পুরো বিশ্বকে বুঝিয়ে দিয়েছে ভারতের শক্তি কতটা। • আপনাদের হাতে দেশরক্ষার ভার যখন রয়েছে, তখন পুরো দেশ নিশ্চিন্ত। • আজ আপনাদের মাঝে এসে আমি এটা অনুভব করছি। • আপনাদের ইচ্ছাশক্তি এই পর্বতের মতোই অটল। • আপনারা বীরত্বের পরিচয় দিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*